ঢাকা ০৫:৫২ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৪ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

পলাশবাড়ীতে বাংলার হারানো ঐতিহ্য নবাবী সাজে বরযাত্রীর বহর রেদোয়ান ও মিম এর বিয়ে সম্পন্ন

নিজস্ব প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় : ১১:৪২:১৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৯ সেপ্টেম্বর ২০২২ ৮৩ বার পড়া হয়েছে
আজকের জার্নাল অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি
গাইবান্ধা প্রতিনিধি : বাংলার হারানো ঐতিহ্য নবাবী সাজে গাইবান্ধা জেলার  পলাশবাড়ী পৌর শহরের একটি বিয়ে সম্পন্ন হয়েছে।আজ শুক্রবার বিকালে সাজানো গোছানো সূর্য্য মহলে হতে পৌর শহরে মধ্য দিয়ে নবাবী সাজে বরযাত্রী যাত্রার মধ্যদিয়ে পলাশবাড়ীর বিশিষ্ট পরিবহন ব্যবসায়ি সূর্য পরিবহনের মালিক ও শ্রমিকনেতা শহিদুল ইসলাম সরকার ও রোকেয়া বেগম দম্পতির পুত্র বিয়ের (বর) রেদোয়ান সরকার ও পৌর শহরের গৃধারীপুরের প্রতিষ্ঠিত বিশিষ্ট ব্যবসায়ি মোতাহার হোসেন সরকার ও সাহানুর বেগম দম্পতির মেয়ে (কনে) ছাবিহা আক্তার মিম এর সহিত আড়াই লক্ষ টাকা সমমান দেন মোহরানা নগদ প্রদানের মাধ্যমে বিবাহ সম্পন্ন হয়েছে।
এ বিয়ে উপলক্ষে ব্যতিক্রমী আয়োজন করেছেন উভয় পরিবার। বর পক্ষ পৌর শহরের অদুরে ঠুটিয়াপাকুর বাজার সূর্য মহলে আয়োজন করে অপর দিকে কনে পরিবার আয়োজন করে পৌর শহরের গৃধারীপুরে। বিয়েতে কোন কিছুর যেমন কমতি ছিলো না তেমনি বরযাত্রী বহনে নবাবী ঘোড়ার গাড়ি,গ্রামীন ঘোড়ার গাড়ি, কার, মাইক্রোবাস, বাস, ভ্যান, রিক্সা, অটোসহ বিভিন্ন মডেলের মোটরসাইকেল সহ সকল প্রকার যানবাহনে বহন করায় পৌরবাসীর মাঝে নানা উৎসাহ উদ্দীপনা নিয়ে বিয়ে যাত্রীদের আনন্দ উপভোগ করেন।
বরের বড় আব্বা আমিনুল ইসলাম রানা বলেন,বিয়ের অনুষ্ঠানটি স্মৃতিময় করে রাখতে উভয় পরিবার এ আয়োজনে করেছে। আয়োজন দেখে এবং আয়োজনে অংশ নিতে পেরে তিনি আনন্দিত।
বরের বড় আব্বা গাইবান্ধা জেলা বাস মিনিবাস কোচ ও মাইক্রোবাস মালিক সমিতির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এনামুল হক মকবুল বলেন, আগের দিনে এভাবে বিয়ে আয়োজনের কথা জানা গেলেও দেখা হয়নি। এ বিয়ে অনুষ্ঠানটি সত্যি স্মৃতিময় হয়ে থাকবে।
বর রেদোয়ান সরকার জানান,বিয়ের আয়োজনটি স্মৃতিময় করে রাখতে গ্রাম বাংলার গ্রামীন ঐতিহ্যে বর্তমান সময়ে ব্যতিক্রমী বিয়ে আনন্দ উপভোগ করতে এ আয়োজন।
অপরদিকে ব্যতিক্রমী আয়োজনে ব্যাপক আনন্দঘণ পরিবেশে শান্তিপূর্ণ পরিবেশে বিয়ে সম্পন্ন হওয়ায় বর ও কনের উভয় পরিবার নব দম্পতির জন্য দোয়া কামনা করেছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

পলাশবাড়ীতে বাংলার হারানো ঐতিহ্য নবাবী সাজে বরযাত্রীর বহর রেদোয়ান ও মিম এর বিয়ে সম্পন্ন

আপডেট সময় : ১১:৪২:১৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৯ সেপ্টেম্বর ২০২২
গাইবান্ধা প্রতিনিধি : বাংলার হারানো ঐতিহ্য নবাবী সাজে গাইবান্ধা জেলার  পলাশবাড়ী পৌর শহরের একটি বিয়ে সম্পন্ন হয়েছে।আজ শুক্রবার বিকালে সাজানো গোছানো সূর্য্য মহলে হতে পৌর শহরে মধ্য দিয়ে নবাবী সাজে বরযাত্রী যাত্রার মধ্যদিয়ে পলাশবাড়ীর বিশিষ্ট পরিবহন ব্যবসায়ি সূর্য পরিবহনের মালিক ও শ্রমিকনেতা শহিদুল ইসলাম সরকার ও রোকেয়া বেগম দম্পতির পুত্র বিয়ের (বর) রেদোয়ান সরকার ও পৌর শহরের গৃধারীপুরের প্রতিষ্ঠিত বিশিষ্ট ব্যবসায়ি মোতাহার হোসেন সরকার ও সাহানুর বেগম দম্পতির মেয়ে (কনে) ছাবিহা আক্তার মিম এর সহিত আড়াই লক্ষ টাকা সমমান দেন মোহরানা নগদ প্রদানের মাধ্যমে বিবাহ সম্পন্ন হয়েছে।
এ বিয়ে উপলক্ষে ব্যতিক্রমী আয়োজন করেছেন উভয় পরিবার। বর পক্ষ পৌর শহরের অদুরে ঠুটিয়াপাকুর বাজার সূর্য মহলে আয়োজন করে অপর দিকে কনে পরিবার আয়োজন করে পৌর শহরের গৃধারীপুরে। বিয়েতে কোন কিছুর যেমন কমতি ছিলো না তেমনি বরযাত্রী বহনে নবাবী ঘোড়ার গাড়ি,গ্রামীন ঘোড়ার গাড়ি, কার, মাইক্রোবাস, বাস, ভ্যান, রিক্সা, অটোসহ বিভিন্ন মডেলের মোটরসাইকেল সহ সকল প্রকার যানবাহনে বহন করায় পৌরবাসীর মাঝে নানা উৎসাহ উদ্দীপনা নিয়ে বিয়ে যাত্রীদের আনন্দ উপভোগ করেন।
বরের বড় আব্বা আমিনুল ইসলাম রানা বলেন,বিয়ের অনুষ্ঠানটি স্মৃতিময় করে রাখতে উভয় পরিবার এ আয়োজনে করেছে। আয়োজন দেখে এবং আয়োজনে অংশ নিতে পেরে তিনি আনন্দিত।
বরের বড় আব্বা গাইবান্ধা জেলা বাস মিনিবাস কোচ ও মাইক্রোবাস মালিক সমিতির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এনামুল হক মকবুল বলেন, আগের দিনে এভাবে বিয়ে আয়োজনের কথা জানা গেলেও দেখা হয়নি। এ বিয়ে অনুষ্ঠানটি সত্যি স্মৃতিময় হয়ে থাকবে।
বর রেদোয়ান সরকার জানান,বিয়ের আয়োজনটি স্মৃতিময় করে রাখতে গ্রাম বাংলার গ্রামীন ঐতিহ্যে বর্তমান সময়ে ব্যতিক্রমী বিয়ে আনন্দ উপভোগ করতে এ আয়োজন।
অপরদিকে ব্যতিক্রমী আয়োজনে ব্যাপক আনন্দঘণ পরিবেশে শান্তিপূর্ণ পরিবেশে বিয়ে সম্পন্ন হওয়ায় বর ও কনের উভয় পরিবার নব দম্পতির জন্য দোয়া কামনা করেছেন।